ঢাকা      শনিবার, ২২ জুন ২০২৪, ৭ আষাঢ় ১৪৩১
শিরোনাম

আইপিএলের ফাইনাল আজ : চেন্নাইয়ের ৫ম নাকি গুজরাটের ২য়?

IMG
28 May 2023, 12:26 PM

স্পোর্টস ডেস্ক, বাংলাদেশ গ্লোবাল: আহমেদাবাদের সেই মোতেরা স্টেডিয়াম। ৩১ মার্চ এবারের আইপিএলের যাত্রা শুরু হয়েছিল এই মাঠ থেকেই। ১৬তম আইপিএলের উদ্বোধনী ম্যাচে মহেন্দ্র সিং ধোনির চেন্নাই সুপার কিংসকে ৫ উইকেটে হারিয়ে শুভযাত্রা হয়েছিল গুজরাট টাইটান্সের।

৫৮ দিন পর সেই মাঠেই অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে আইপিএলের ফাইনাল এবং কাকতালীয়ভাবে ফাইনালেই উদ্বোধনী ম্যাচের সেই দুই প্রতিপক্ষ, গুজরাট টাইটান্স এবং চেন্নাই সুপার কিংস। ঠিক যেন একটি বৃত্ত। যার দুই প্রান্ত এক জায়গা থেকে শুরু হয়ে আবার সেই একই জায়গায় এসে মিলিত হচ্ছে।

মোতেরা স্টেডিয়ামে আইপিএল শুরুর আগে সংক্ষিপ্ত উদ্বোধনী অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছিল। অরিজিৎ সিংয়ের গান দিয়ে এবারের আইপিএল শুরু হয়। গুজরাটি গান দিয়ে অনুষ্ঠান শুরু করেছিলেন অরিজিৎ। তার একের পর এক হিট গানে মুগ্ধ করেছিলেন মাঠভর্তি দর্শককে।

তামান্না ভাটিয়া এবং রাশ্মিকা মন্দানার নাচে জমজমাট অনুষ্ঠান দেখেছিলেন সবাই। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানের পর যে দুই অধিনায়ক টস করতে নেমেছিলেন, আজকের ফাইনালে আবার তাদেরই দেখা যাবে মাঠে। আরও একবার টস করতে নামবেন হার্দিক পান্ডিয়া এবং মহেন্দ্র সিংহ ধোনি। মাঝে শেষ হয়ে গেছে আরও ৭২টি ম্যাচ।

টানা দ্বিতীয়বার ফাইনাল উঠে এলো গুজরাট টাইটান্স। ২০২২ সালেই প্রথম আইপিএলে যাত্রা শুরু হয়েছিল গুজরাটের। হার্দিক পান্ডিয়ার হাত ধরে নিজেদের অভিষেকেই চ্যাম্পিয়ন ফ্রাঞ্চাইজিটি। এবার আবারও তারা উঠে এলো ফাইনালে। প্রতিপক্ষ চেন্নাই সুপার কিংসের কথা তো বলাই বাহুল্য। এ নিয়ে ১০মবার ফাইনালে উঠলো চেন্নাই সুপার কিংস।

সুতরাং, কে জিতবে শিরোপা? আইপিএল প্রেমিদের কাছে এখন এটা কোটি টাকার প্রশ্ন। টানা দ্বিতীয়বার চ্যাম্পিয়ন হবে গুজরাট নাকি পঞ্চমবারের মতো বিশ্বের সেরা ফ্রাঞ্চাইজি লিগটির শিরোপা হাতে তুলে নেবেন চেন্নাই সুপার কিংস অধিনায়ক মহেন্দ্র সিং ধোনি?

উদ্বোধনী ম্যাচে টস জিতে চেন্নাইকে ব্যাট করতে পাঠিয়েছিল গুজরাট। ব্যাট করতে নেমে ৭ উইকেট হারিয়ে ১৭৮ রান করেছিল চেন্নাই। জবাবে ১৯.২ ওভারে ৫ উইকেট হারিয়ে জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় গুজরাট টাইটান্স।

ফাইনালের আগে দুই দল আরও একবার মুখোমুখি হয়েছিল। সেটা কোয়ালিফায়ার-১। চেন্নাইয়ের এম চিদাম্বরম স্টেডিয়ামে ওই ম্যাচে অবশ্য জয় হয়েছে স্বাগতিক চেন্নাইয়ের। চেন্নাই করেছিল ৭ উইকেট হারিয়ে ১৭২ রান। জবাবে ১৫৭ রানে অলআউট হয়ে যায় গুজরাট। ১৫ রানের জয়ে ফাইনাল নিশ্চিত করে মহেন্দ্র সিং ধোনির দল। অর্থাৎ আগের দুই মুখোমুখিতে ফল সমান সমান।

উদ্বোধনী ম্যাচে লড়াই হয়েছিল দুই ভারতীয় ব্যাটারের। ঋতুরাজ গায়কোয়াড় ৫০ বলে ওই ম্যাচে করেছিলেন ৯২ রান। তিনি ছাড়া অন্য ব্যাটাররা কেউ সেভাবে রান পাননি। গুজরাটের হয়ে ওই ম্যাচে রান করেছিলেন শুভমান গিল। ৩৬ বলে ৬৩ রান করেছিলেন তিনি।

প্রথম ম্যাচ থেকে ছন্দে থাকার ইঙ্গিত দিয়েছিলেন এই তরুণ ব্যাটার। আইপিএলের ফাইনাল খেলতে নামার আগে তার মাথায়ই থাকবে কমলা টুপি। দ্বিতীয় কোয়ালিফায়ারে মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিপক্ষে ৬০ বলে ১২৯ রানের টর্নেডো ইনিংস খেলার কারণে তিনিই এখন সবচেয়ে বেশি আলোচনায়। সবচেয়ে বেশি রান রয়েছে তার ঝুলিতেই। বেগনি টুপি রয়েছে মোহাম্মদ শামির দখলে। দুজনেই গুজরাট টাইটান্সের।

আইপিএলের উদ্বোধনী মঞ্চে ট্রফির দু’পাশে দাঁড়িয়েছিলেন ধোনি এবং হার্দিক। সেই ছবিটাই ফাইনালের ছবি হয়ে গেল। শুরু থেকে শেষ শুধুই গুজরাত এবং চেন্নাই।


বাংলাদেশ গ্লোবাল/এইচএম

সবশেষ খবর এবং আপডেট জানার জন্য চোখ রাখুন বাংলাদেশ গ্লোবাল ডট কম-এ। ব্রেকিং নিউজ এবং দিনের আলোচিত সংবাদ জানতে লগ ইন করুন: www.bangladeshglobal.com

সর্বশেষ খবর

আরো পড়ুন